Monday , 15 April 2024 | [bangla_date]
  1. অর্থনীতি
  2. আন্তর্জাতিক
  3. ইসলাম
  4. খেলাধুলা
  5. জাতীয়
  6. প্রবাস
  7. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  8. রাজনীতি
  9. সারাদেশ

বালিয়াকান্দিতে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য সাংস্কৃতি টিকিয়ে রাখতে কাজ করছেন চেয়ারম্যান বাদশা আলমগীর।

প্রতিবেদক
Staff Reporter
April 15, 2024 8:20 pm

আশিক হাসান সীমান্ত রাজবাড়ী:-

” বাজেরে বাজে ঢোল আর ঢাক, এলোরে পহেলা বৈশাখ ” বাঙালি জাতির ঐতিহ্য বহন করে প্রতিবছর ফিরে আসে বাংলা নব বর্ষের প্রথম দিন পহেলা বৈশাখ। এই দিনটিকে ঘিরে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে অনুষ্ঠিত হয় বৈশাখী মেলা। দীর্ঘ ২০০ বছরের এই ঐতিহ্যকে সাধারণ মানুষের মাঝে ফিরিয়ে দিতে অক্লান্ত কাজ করে যাচ্ছেন নবাবপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বাদশা আলমগীর।

বিগত ২০০ বছরের পুরানো ঐতিহ্যকে ধারণ করে প্রতি বছরের ন্যায় এবারেও অনুষ্ঠিত হচ্ছে বৈশাখী মেলা। রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের নবাবপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে হরেক রকমের পন্য নিয়ে এই মেলায় এসেছে ব্যবসায়ী দোকানপাঠ, নাগরদোলাসহ বেশ কিছু বিনোদনমূলক খেলাধুলার জিনিসপত্র। এই মেলায় আগমন ঘটেছে দেশের এলাকার বিনোদনমুখী মানুষের ঢল ।

নবাবপুরের (বেরুলিয়া) ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন নবাবপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সকাল থেকেই পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে শুরু হয় ঐতিহ্যবাহী এই মেলার। মেলা কে ঘিরে বিভিন্ন এলাকা থেকে উৎসব প্রেমী মানুষের ভিড় জমতে শুরু করে হাজার হাজার মানষের মিলন মেলায় পরিনত হয়। মেলার মাঠে আসা বিভিন্ন দোকানে উপচে পড়া ভিড় পরিলক্ষিত হয়। শিশু কিশোর সহ নানা বয়সের মানুষ দোকান থেকে পছন্দের পণ্য কিনতে শুরু করে। বেলা গড়ানোর সাথে সাথে মেলায় ভীড় বাড়তে থাকে।

কথা হয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান বাদশা আলমগীরের সঙ্গে। তিনি বলেন, বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের নবাবপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে দীর্ঘ দুইশ বছরের পুরানো বৈশাখী মেলা মানুষের প্রাণের দাবিকে আরো সুন্দর করে সাজাতে ইউনিয়ন পরিষদ, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটি, বেরুলিয়া বাজার পরিচালনা কমিটি সহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সঙ্গে নিয়ে সুন্দর করে সাজাতে চেষ্টা করে যাচ্ছি। ধরে রাখার চেষ্টা করছি বাংলার ঐতিহ্য সংস্কৃতি। আমাদের মধ্য থেকে বিনোদনমুখী অনেক অনুষ্ঠানে আজ বিলুপ্তির পথে। মানুষের মনের খোরাক আনন্দ উৎসব দিয়ে তাদের মাতিয়ে রাখতেই আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস। মেলায় অনেক ধরনের খেলাধুলার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। তিনদিনের এই মেলায় দ্বিতীয় দিনে থাকছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী লাঠি খেলা। বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত লাঠিয়ালদের কলাকৌশল দিয়ে মানুষের মাঝে আনন্দ দেবেন বলে আশা করছি। বিজয়ী লাঠিয়াল গ্রুপের জন্য থাকবে আকর্ষণীয় পুরস্কারের ব্যবস্থা।

তিনি আরো বলেন, গ্রাম বাংলার হারানো দিনের স্মৃতি চোখে ফিরিয়ে আনতে যা কিছু করার প্রয়োজন আমি আমার ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনসাধারণকে সাথে নিয়ে সব কিছুই করব। আজ আমরা পুরনো দিনের ঐতিহ্যকে ভুলে যেতে বসেছি। গ্রাম বাংলার হারানো ঐতিহ্যগুলোকে জানতে আমি নিরলস কাজ করে যাব ইনশাল্লাহ।

Loading

সর্বশেষ - সারাদেশ

আপনার জন্য নির্বাচিত

ঠাকুর গাঁওয়ে আমন নিড়ানিতে ব্যস্ত কৃষক।

কুষ্টিয়ায় মাদকদ্রব্যটাপেন্টল ট্যাবলেট সহ ৩ জন গ্রেফতার

গাজিপুরে জোরপূর্বক জমি দখল।

শেরপুর ঝিনাইগাতী অনলাইন ক্যাসিনো জোয়ার এজেন্ট গ্রেপ্তার।

নারায়ণগঞ্জে সিদ্ধিরগঞ্জে সবজি বিক্রেতা আক্কাস হত্যার মূল হোতাসহ গ্রেফতার-২

রাঙ্গুনিয়ার অভিভাবক মাননীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী জননেতা ড. হাছান মাহমুদ এমপির জনসমাবেশ

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে দারিদ্র্য সেবায় নিয়োজিত সংগঠনের পহ্মথেকে অসহায় মানুষদের মধ্যে ইফতার বিতরন

ইউপি চেয়ারম্যানের আতংকে এলাকাবাসী।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের কারণে ঢাকা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ের  আশেপাশের এলাকার রাস্তাগুলোর যানজট একটু বেড়েছে 

শ্যামনগর থানা পুলিশের অভিযানে আটক।