Friday , 3 November 2023 | [bangla_date]
  1. অর্থনীতি
  2. আন্তর্জাতিক
  3. ইসলাম
  4. খেলাধুলা
  5. জাতীয়
  6. প্রবাস
  7. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  8. রাজনীতি
  9. সারাদেশ

গাজীপুরে সম্পত্তি সংক্রান্ত জের ধরে স্বামী সন্তান দ্বারা অত্যাচারিত হয়ে আসছেন শিউলি বেগম

প্রতিবেদক
Staff Reporter
November 3, 2023 1:21 am

মনজুর সরকারঃ গাজীপুরঃ-

গাজীপুর মহানগর ১৩ নং ওয়ার্ডের বাসন থানাধীন নাওজোড় হোসেন মার্কেট এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা বেগম শিউলি আক্তার লাকি(৩৬) সম্পত্তি সংক্রান্ত জের ধরে দীর্ঘদিন যাবত অত্যাচারিত হয়ে আসছেন। শিউলি আক্তার লাকি পিতা মৃত নবু মিয়া। আজ থেকে ২১ বছর আগে সেলিম মিয়া (৪৮)পিতা সালামত উল্লাহ তার সাথে শরীয়ত মোতাবেক রেজিস্ট্রেশন কাবিন মূলে বিবাহ সম্পন্ন হয় কিন্তু দুঃখের বিষয় বিয়ের পর শিউলি আক্তার ও তার পরিবারবর্গ জানতে পারে শিউলি আক্তারের স্বামী সেলিম মিয়া একজন পরধনলোভী স্বার্থপর মানুষ। বিবাহের পর শিউলি আক্তার ও স্বামী সেলিম মিয়ার সংসারে দুই ছেলে ও এক কন্যার জন্ম হয়। শিউলির স্বামী সেলিম মিয়ার গ্রামের বাড়ি চাঁদপুর সে বর্তমানে গাজীপুরের হোসেন মার্কেট এলাকায় শ্বশুরের দোয়া সম্পত্তির ওপর শশুরের টাকায় বাড়ি নির্মাণ করে সেখানে থাকতে থাকে। পরবর্তীতে সেলিম মিয়া ব্যবসা করে অল্প একটু জায়গা কিনে আরেকটি বাড়ি তৈরি করে। বর্তমানে শিউলি আক্তার বাবার দেয়া সম্পত্তির উপর তৈরি কৃত বাড়িতে বসবাস করিতেছে। বিয়ের পর শিউলি ও সেলিম মিয়ার সংসার ভালোই চলতেছিল কিন্তু বেশ কয়েক বছর যাবত দেখা দেয় সেলিম মিয়ার আসল রূপ। নারী লোভী সেলিম মিয়া শিউলি বেগম কে বলে তোমাকে এখন আমার আর ভালো লাগেনা তাই আমি আর একটি বিয়ে করবো এবং স্বামী সেলিম মিয়া শিউলি বলে তোমাকে তালাক দিয়ে আমি বাড়িঘর বিক্রি করে বিয়ে করে অন্য জায়গায় থাকবো আর এই কারণে স্বামী সেলিম মিয়া স্ত্রী শিউলি আক্তারের সাথে প্রতিনিয়ত ঝগড়াঝাটি করত এবং মারধর করত। এই মারধোর সহ্য করে স্ত্রী শীউলি সংসার করে আসতেছিল ইতিমধ্যে তাদের কন্যা সন্তানের বিয়ে হয় এবং বড় ছেলে ইয়ামিন(২০) বেশ কয়েক মাস আগে বিয়ে করে এবং বাসন থানায় অন্তর্গত ভোগরা এলাকা শশুর বাড়ি বসবাস করতে থাকে। সন্তান শ্বশুরবাড়ি থাকা অবস্থায় ঘন ঘন বাপের বাড়ি আসে এবং মায়ের কাছে টাকা দাবি করে বলে বাড়ি ভাড়ার টাকা আমাকে দাও খরচের জন্য তখন থেকে শুরু হয় সন্তানের অত্যাচার মায়ের উপর এতদিন শিউলি বেগম স্বামীর অত্যাচার সহ্য করে সংসার করে আসতেছিল এখন শুরু হয়েছে সন্তানের অত্যাচার সন্তানকে টাকা না দিলেই সে ঘরের জিনিসপত্র ভাঙচুর করে এবং মায়ের উপর অত্যাচার করে এবং বাবার সাথে কাঁধ মিলিয়ে বাড়িঘর বিক্রির কথা বলে এই নিয়ে শুরু হয়ে যায়  শিউলির জীবনে স্বামী  এবং সন্তানের অত্যাচার এই অত্যাচারের ধারাবাহিকতায় গত ৩১/১০/২৩ ইং রাত আনুমানিক  ৯.০০ ঘটিকার সময় স্বামী সেলিম মিয়া স্ত্রী শিউলি আক্তারের সাথে নানা ব্যাপারে তর্ক বিতর্ক এবং ঝগড়াঝাটি শুরু করে দেয় একপর্যায়ে স্ত্রীকে কিল ঘুষি মারতে শুরু করে তখন কন্যা সন্তানটি বাবার মারপিট থামাতে এগিয়ে আসে তা দেখে ঠিক তখনি বড় ছেলে ইয়ামিন পিতা মাতার ঝগড়া থামানোর জন্য এগিয়ে আসা বোনকে খিলঘুশি ও লাথি মারে এবং মায়ের গায়ে হাত তোলে এমতাবস্থায় ভাড়াটিয়া এবং আশেপাশের লোকজন এসে শীশিউ বেগমকে মারপিটের হাত থেকে রক্ষা করে। এই মারপিট ব্যাপারে শিউলি বেগম পরদিন বাসন থানায় বাদী হয়ে স্বামী সেলিম মিয়া ও সন্তান ইয়ামিনকে আসামি করে একটি অভিযোগ দায়ের করে অভিযোগে উল্লেখ করে দীর্ঘদিন যাবত স্বামী সেলিম মিয়া ও সন্তান ইয়ামিন Chris বিক্রি করার জন্য নানা অজুহাতে বিভিন্ন সময় তাকে মারপিট ও অত্যাচার করে আসতেছে এমনকি বাড়ি বিক্রি না করতে পারলে তারা শিউলি বেগমকে হত্যার হুমকি পর্যন্ত দিয়েছে বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে। ৩১/১০/২৩ ইং রাতে শিউলি আক্তার কে স্বামী সেলিম মিয়া এবং সন্তান ইয়ামিন যে মারপিট করে মারপিটের বিষয়টি আমরা নিশ্চিত হই প্রতিবেশী রায়হান (২৫) এবং ভাড়াটিয়া হারুনুর রশিদ ( ৩০) এর কাছ থেকে, এরা ঘটনার সময় প্রত্যক্ষদর্শী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। প্রতিবেশী রায়হান এবং ভাড়াটিয়া হারুনুর রশিদ আমাদের মিডিয়ার কে জানান সেলিম মিয়া বাড়ি বিক্রির জন্য এবং বিয়ে করার জন্য মাঝে মাঝেই শিউলী বেগম কে অত্যাচার করে আসতেছিল এবং সন্তান ইয়ামিন মায়ের  কাছে  ঘন ঘন টাকার জন্য আসে এবং এসে ঝগড়াঝাটি করে মায়ের উপর অত্যাচার করে। শিউলি আক্তার আমাদের মিডিয়ার মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এবং দেশবাসীর কাছে বিচার চেয়েছেন  যে বাড়ি বিক্রি করলে তার ছোট ছেলে  এবং তিনি কোথায় থাকবেন তাই আইনের কাছে এর সুষ্ঠু সমাধানের জন্য তিনি আবেদন করেছেন এবং যেন স্বামী সন্তানের অত্যাচারের হাত থেকে তিনি রক্ষা পান আইনের কাছে এবং দেশবাসীর কাছে মিডিয়ার মাধ্যমে বিচার চেয়েছেন।

Loading

সর্বশেষ - সারাদেশ

আপনার জন্য নির্বাচিত

গাজীপুরে দেশীয় অস্ত্র সহ ৫ ডাকাত সদস্য গ্রেফতার।

ব্যাংকের চেক ও নগদ টাকা ছিনতাই কারীদের দ্রুত গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে সংবাদ সম্মেলন সোনাপুরে

বেনাপোল থেকে ২২ বোতল মদসহ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক

আধুনিক বস্ত্রালয়ের” পক্ষ থেকে সবাইকে নতুন বছরের “শুভেচ্ছা” ও “অভিনন্দন” জানাচ্ছি

কুমারখালীতে বিশ্ব ভোক্তা-অধিকার দিবস পালিত

জনদূর্ভ্যোগ কমাতে নিজ উদ্যোগে রাস্তা সংস্কার কজের উদ্বোধন করলেন চেয়ারম্যান অভিজিত বসাক।

ঝালকাঠি পূর্ব চাঁদকাঠি এলাকা থেকে সৌরভ হালদার কে ১২০ পিস ইয়াবাসহ আটক করেছে ডিবি পুলিশ।

কুষ্টিয়ায় উপজেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ শিক্ষক নির্বাচিত নাদিরা খানম জাহিদুল ইসলাম।

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ড বনাম ভোট প্রদানে জনগণের প্রতিবন্ধকতা।

গাজীপুরে কম্বল বিতরণ শীতার্ত মানুষের মাঝে — আলহাজ্ব এস এম আলতাব হোসেন