Thursday , 1 June 2023 | [bangla_date]
  1. অর্থনীতি
  2. আন্তর্জাতিক
  3. ইসলাম
  4. খেলাধুলা
  5. জাতীয়
  6. প্রবাস
  7. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  8. রাজনীতি
  9. সারাদেশ

প্রচন্ড গরমে রংপুরে বেড়েছে তালশাঁস বিক্রির চাহিদা।

প্রতিবেদক
Staff Reporter
June 1, 2023 5:33 pm

মাটি মামুন রংপুর:-

রংপুর নগরীর বিভিন্ন হাট-বাজারে তালশাঁস বিক্রিতে ব্যস্ত ব্যবসায়ীরা। এটি গ্রাম-বাংলার ঐতিহ্যবাহী মৌসুমি ফল। এই ফলের স্বাদ ভিন্ন রকম। তাই এই সুস্বাদু তালশাঁস খেতে বাজারে ক্রেতারা ভিড় জমাচ্ছেন। গত বছরের চেয়ে এই বছর তালশাঁসের দাম অনেকটা বেশি অভিযোগ ক্রেতাদের। কেউ বলে তালশাঁস, আবার কেউ বলে তালের চোখ,কেউ বলে তালকুরা বা বিচি। বিভিন্ন নামে ডাকে এই মৌসুমি ফলকে। গরম বাড়ার সাথে সাথে এর চাহিদা বেড়েছে সাধারণ মানুষের কাছে। প্রচন্ড গরমে রংপুরের বিভিন্ন হাট-বাজার ও রাস্তার মোড় কিংবা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অফিস,আদালতের সামনে ভ্যানে বা বস্তি দোকান দিয়ে বিক্রি হচ্ছে তালের শাঁস।

বৈশাখ থেকে জৈষ্ঠ্য মাসের অর্ধেক পর্যন্ত এ দেড় মাস চলে তালের শাঁস বিক্রি। বিক্রেতারা বিভিন্ন জেলা ঘুরে ঘুরে এসব তালের শাঁস কিনে নিয়ে এসে নিজ এলাকার হাট-বাজারে বিক্রি করেন। এ ফলটি খেতে যেমন সু-স্বাদু, তেমনি এতে রয়েছে প্রচুর পুষ্ঠিগুণ। রংপুরের বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা যায়,তালশাঁস ব্যবসায়ীরা তালের খামাল দিয়ে বসে আছেন, আর তাল কেটে শাঁস
বেড় করতে ব্যস্ত তারা। বছরের প্রথম মৌসুমী ফল,এ ফল খেতে তার চারপাশে ভিড় করছেন ক্রেতারা। প্রতিজন ১৫ থেকে ২০টি করে অর্ডার দিচ্ছেন। এ তে কাটতে হিমশিম খাচ্ছেন এসব তালশাঁস ব্যবসায়ীরা।চলতি মৌসুমে অনাবৃষ্টির কারণে এবার তালের ফলন কম। গেলো বছর ৩ থেকে ৪ টাকা দরে প্রতিটি তাল ক্রয় করতো তাল ব্যবসায়ীরা।এইবার তা কিনতে হচ্ছে ৫ থেকে ৬ টাকা দরে। একটা তালের মধ্যে থাকে ২ থেকে ৩টি শাঁস। এখন প্রতিটি তালশাঁস বিক্রি করছেন ৬ থেকে ১০ টাকা পিস।

জ্যৈষ্ঠ মাসের শুরুতে উঠতে শুরু করে তালের শাঁস। এদিকে যতদিন যাচ্ছে, ততই তালের গাছ হারিয়ে যাচ্ছে। আর তাতে অনেকটায় দুর্লভ হয়ে যাচ্ছে তালের শাঁস। এক সময় গ্রামগঞ্জের মাঠে-ঘাটে আর রাস্তার পাশে দেখা যেতো তালের গাছ। এখন আর তেমন চোখে পড়ে না। আগের দিনে মানুষ তালের শাঁস কিনে খেতো কম, কেননা হাতের নাগালেই পাওয়া যেতো। এখন সেই তাল টাকার বিনিময়ে কিনে খেতে হচ্ছে। কথা হয় তালশাঁস কিনতে আসা রেজাউল করিমের সঙ্গে।তিনি বলেন, তালের শাঁস স্বাদে ভরা। আমারসহ পরিবারের সবার পছন্দ, তাই তালশাঁস কিনতে আসছি। পরিবারের জন্য ২০টির অর্ডার দিয়েছি আরেকজন ক্রেতা রংপুর মেডিকেল কলেজ স্টুডেন্ট তারিকুল ইসলাম তিনি বলেন অন্যান্য ফলের চেয়ে তালশাঁসের স্বাদ আলাদা।বাজারে যে কোনো ফল কিনবেন ফরমালিন ছাড়া নেই শুধু তালশাঁস এ ফরমালিন নেই অন্য ফলের মাঝে এই স্বাদ খুঁজে পাই না। প্রতি বছর তাল উঠলে আমি প্রতিদিন ৫ থেকে ৭টা করে তালশাঁস খেয়ে থাকি।

Loading

সর্বশেষ - সারাদেশ

আপনার জন্য নির্বাচিত

গাজীপুরে বিভিন্ন শিল্প অঞ্চলে গার্মেন্টস শ্রমিকদের ‌ অনাকাঙ্ক্ষিত আন্দোলন থেকে বিরত থাকার আহ্বান গাজিপুরের সকল গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন সমূহ আলহাজ্ব এড জাহাঙ্গীর আলম

ভোলাহাটে কৃষকলীগের প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত

প্রধানমন্ত্রীর সহযোগিতা এবং আমার ছেলের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে আধুনিক নগর উপহার দেব।–মেয়র জায়েদা খাতুন

রাঙামাটি পার্বত্য জেলা সভাপতি এবং চট্টগ্রাম উত্তর জেলা কমিটির তাঁতি লীগের যুগ্ম আহবায়ক বিকাশ দাশ গুপ্তর কিছু কথা

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে মাঠ থেকে বৃদ্ধের মাথা থেঁতলানো মরদেহ উদ্ধার

ঝালকাঠি পূর্ব চাঁদকাঠি এলাকা থেকে সৌরভ হালদার কে ১২০ পিস ইয়াবাসহ আটক করেছে ডিবি পুলিশ।

দিনাজপুর ৬ আসন চারদিকে শুধু নৌকা আর নৌকা

রংপুরে গরমে থেকে বাঁচতে পুকুরে গোসল করতে নেমে প্রাণ গেল দুই শিশুর।

– কল্পনায় ভালোবাসা—

মায়ের শ্রদ্ধাঞ্জলি বিকাশ দাসগুপ্তের।